মুভি ডাউনলোড এর A টু Z টিপস এন্ড ট্রিক্স

কেমন আছে সবাই ? ভালো তোঁ ! আমি ও বেশ আছি। এটা আর্নট্রিক্স এ আমার প্রথম পোস্ট। বন্ধু তাহের চৌধুরি সুমনের অনুপ্রেরণায় আজ আমি লিখতে বসলাম। যদি ও এটা আয় বিষয়ক বাংলা ব্লগ তবে দেখে ভালো লাগছে যে এখানে  টিপস্‌ এন্ড ট্রিকস্‌, আজকের নিউজ এবং টেক নিউজ এর মতো বিভাগ গুলো রাখা হয়েছে তা না হলে আমরা যারা এই ব্লগে লিখতে চাই তারা হয় তোঁ কিছুই লিখতে পারতাম না। তাই এই সাইটের এডমিন-মডারেটর সহ নিয়মিত ভিজিটর সবাইকে ধন্যবাদ। চলুন আর দেরি না করে শুরু করি।

আমরা অনেকেই মুভি পাগল , কিন্তু দুর্বল নেট আর ডাউনলোড করতে না পারার জন্যে পছন্দের মুভি দেখতে পারিনা । হয়তো অনেকেই জানেন কিভাবে মুভি ডাউনলোড করতে হয় , আবার অনেকেই জানেন না তাই তাদের জন্যে এই ক্ষুদ্র প্রয়াস।

আমি মিডিয়াফার ও টোরেন্ট ডাউনলোড এর কিছু জানা অজানা টিপস তথ্য জানাবো

মিডিয়াফায়ার মুভি কিভাবে নামাবেন

মুভি আমারা সাধারণত টোরেন্ট অথবা বিভিন্ন ফাইল হোস্টিং সাইট থেকে ডাউনলোড করে থাকি। প্রথমে আমি তেমনি একটি ফাইল হোস্টিং জনপ্রিয় সাইট মিডিয়াফায়ার নিয়ে আলোচনা করবো । মিডিয়াফায়ার থেকে মুভি ডাউনলোড করার জনপ্রিয় ও মান সম্মত সাইট গুলো হচ্ছে

  1. মিডিয়াফারে ডাওনলোড এর ক্ষত্রে পাসোয়ার্ড চাইলে সাইট গুলোর নামই হচ্ছে পাসোয়ার্ড যেমন urgrove.com
  2. এই সকল সাইটে মুভি গুলো তিন/চার/পাচ/ছয় টুকরো করে থাকে ডাউনলোড সুবিধার্থে অর্থাৎ যেমন ৬০০ মেগাবাইটের একটি মুভি ২০০ করে তিন টুকরো করে মিডিয়াফায়ারের লিংক দেয়া থাকে ।
  3. এই সকল সাইটের আপনি কম মেগাবাইটে ভালো প্রিন্টের মুভি গুলো পাবেন । এখন এই টুকরো ফাইল গুলোকে একটি স্প্লিট জয়েনার সফট দিয়ে খুব সহজে জয়েন দিয়ে পুরো একটা মুভি ইনজয় করা যায়।
    ১৩০ কেবি এই ছোট্ট HJsplit সফট টা ডাউনলোড করুন এইখানে ক্লিক করেন ।
  4. ডাউলোড কৃত মুভির টুকরো গুলো একটি আলাদা ফোল্ডারে রাখুন এর পর HJsplit সফট টি ওপেন করুন তার পর সফটির Join>input file>যে ফোল্ডারে রেখেছেন সেই ফোল্ডার ওপেন করুন>প্রথম টুকরোটা ভিজিবল হবে শুধু , টুকরোটা সিলেক্ট করে >start দিন । ব্যাস জয়েন হয়ে যাবে আপনার ডাউনলোড কৃত মুভি , এবার মুভি দেখুন ।

মিডিয়াফায়ার এর ডাউনলোডে কিছু সমস্যা ও সমাধানঃ

মিডিয়া ফায়ারে ডাউনলোড এ যে সমস্যা টা হয় সেটি হলো আমারা যারা ফ্রি সুবিধা পাই তারা ডাউলোড পস করে নেট কানেকশন অফ করলে পরে আবার সেটা যখন নেট কানেকশন লাগিয়ে ডাউনলোড স্ট্রাট দেই তখন ডাউলোড হয় না, দেখা যায় ৭০% ১০% ইত্যাদি হয়ে টাইম আউট হয়ে যায় এবং সেকেন্ড বার ডাওনলোড করতে গেলে ডাউলোড হয় না বা লিংক পায় না । এর জন্যে খুব সহজ সমাধান রয়েছে, তবে চলুন দেখে নেই…

১) প্রথমে আপনার ব্রাউসার এর সকল History এবং cookies ডিলিট করে দিন, মজিলার ক্ষত্রে Option>Privacy> clear your recent history এবং remove individual cookies ডিলিট ও রিমুভ অল করে দিন । এবার মিডিয়াফায়ার এর সেই ডাউলোডে পেজে যান দেখবেন আবার ডাউনলোড লিংক পাবেন এবার যা করতে হবে উদাহরন সরুপঃ

২)পুনোরায় লিংক পাবার পর

৩)ডাউনলোড অফ হয়ে যাওয়া ফাইলটি ডাবল ক্লিক করে

৪)ডাবল ক্লিক করার পর ফাই প্রোপারটিজ ওপেন হলে যা করতে হবে

৫)এবার রিসম ক্লিক করলেই ফাইলটি পুনরায় সেই থেমে যাওয়া থেকেই ডাউনলোড হবে

কি ধরনের প্রিন্টে মুভি ডাউনলোড করবেন এবং ভালো প্রিন্ট কিভাবে বুঝবেন

আমারা দেখি মুভির নামের পাশে অনেক ধরনের ফরমেটের নাম লেখা থাকে যেমন  Blu Ray/BDRip/R5/DVDRip/TELESYNC/CAM/ ইত্যাদি । এই সব দ্বারা কি বুঝায় তা নিচে দেয়া হলো :

 

CAM : এটা হচ্ছে সরাসরি হল প্রিন্ট । দেখা মানে সময় নষ্ট ,ডিজিটাল ক্যামেরা দিয়ে লুকিয়ে হলের কোন-কানা থেকে এটার ভিডিও করা হয়, মাঝে মাঝে ক্যামেরা নড়ে যায়, সামনে দিয়ে লোক হেটে যায়, কথা শোনা যায় না এবং ঝাপসা রং ছাড়া প্রিন্ট ।

TELESYNC : এটার প্রিন্ট ক্যাম প্রিন্টই পার্থক্য যেটা সেটা হলো সাউন্ডে। এটার অডিও এক্সার্টানাল অডিও সোর্স (যেমনঃ হেড ফোন) থেকে রেকর্ড করা হয়। অনেকক্ষেত্রেই ক্যামের চেয়ে ভালো প্রিন্ট পাওয়া যায় যদি খালি সিনেমা হলে বা প্রোজেকশন রুম থেকে ভিডিও করা হয়।

DVD-SCREENER : এটা হলো মূল ডিভিডি প্রিন্টের প্রি ভার্সণ। এটার কোয়ালিটি ডিভিডির মতই ।কিন্তু এটাতে নানারকম ওয়াটার মার্ক লেখা থাকে সাধারনতঃ এগুলো প্রমোশনাল কাজে নানা জায়গায় পাঠানো হয়

R5 : এটা হচ্ছে পাইরেসিকে টেক্কা দেবার জন্য মুভি ইন্ড্রাস্টির চেষ্টা…মূলত রাশিয়া জোনের জন্য এই প্রিন্ট বের করা হয়। এটা হলো কম খরচে, লো কোয়ালিটি প্রিন্টের ডিভিডি যেটা বের করা হয় স্ক্রিণার প্রিন্টের সময়েই…বেশির ভাগ সময়ে এটাতে ইংরেজী ডাব থাকে না…সেসময় এর উপর হল থেকে ইংরেজী অডিও ডাব করা হয় এবং লেখা থাকে- R5 LINE

WORKPRINT : এই ভার্সনে পুরো মুভিটি থাকে না..ডিভিডি তৈরি করার সময়ে নন-প্রসেসড ভার্সন এটা।

DVDRip : এটা হলো ফাইনাল ডিভিডি রিলিজ ।চমৎকার সাউন্ড এবং ভিডিও কোয়ালিটি ।ফাইল ফরম্যাট সাধারনত: DivX/XviD থাকে।

BDRip : এটা  DVDRip এর উপরের ভার্শন।  এটার রেগুলেশন অসাধারন।

Blu Ray : এটা হলো মুভির অরিজিনাল ভার্শন। এটা সরাসরি মুভির কম্পানি অনলাইন রিলিজ করে।

BrRip ( 720 & 1080p) : এটা হলো ইনকোড ভার্শন।  বিভিন্ন আপলোডাররা এটা বিভিন্নভাবে ইনকোড করে। ফ্রির ভেতর এটাই সব থেকে ভালো প্রিন। ৪২০,৭২০ এবং ১০৮০ দিয়ে মুভির রেগুলেশন ও মনিটরের পরিমাপ দেখানো হয়।আমার মতে  Blu Ray > BrRip > DVDRip > R5 পর্যায় ক্রমে প্রাধান্য দেয়া উচিত ডাউওনলোড করার ক্ষেত্রে , তবে অপেক্ষাকৃত ভালো প্রিন্টের জন্যে নতুন মুভি দেখার ক্ষেত্রে অপেক্ষা করা উচিত ।

 

এবার লিখব টোরেন্ট থেকে মুভি ডাউলোড এর কিছু টিপস নিয়ে :

বিডিতে আমারা এখনো সাধারন মানুষেরা 3G নেট প্রযুক্তি পাইনি , আমাদের নেট স্পিড অনেক কম , টোরেন্ট ফাইল ডাওনলোড ক্ষত্রে অনেক সময় সিড না থাকার কারনে ডাউনলোড হয় না

এক্ষত্রে IDM ডাওলোড ম্যানেজার  দিয়ে আমারা টোরেন্ট ফাইল নামালে ভালো স্পীড পেতে পারি এবং সীড এর ঝামেলা থাকেনা এর জন্যে প্রথমে আপনাকে যা যা করতে হবে

  1. torrific.com  এ একটি ফ্রি একাউন্ট খুলে নিন
  2. এবার আপনার মুভির টোরেন্ট ডাউওনলোড লিংক এর ডাউনলোড এর উপর রাইট বাটন ক্লিক করে কপি লিং লোকেশন করে নিন
  3. এইবার আবার torrific.com এ আপনার লগ ইন কৃত পেজে গিয়ে উপরের খালি বক্সে আপনার কপি কৃত লিংক লোকেশন হয়ে থাকা লিংক টি পেস্ট করুন এর পর Get এ ক্লিক করুন
  4. এর পর দেখা যাবে একটি পেজ আসবে যেখানে ডান পাসে initiate bittorrent transmission নামে একটি বক্স আসবে সেটাতে ক্লিক করুন
  5. আপনার টোরেন্ট টী এভেইলেবল থাকলে দেখাবে এভেইলেবল না থাকলে  your torrent was added to the queue

it will take approximately 16 mins দেখাবে ,টাইম শো করবে , কিছুক্ষণ পর তার লিংক আপনি পেয়ে যাবেন যা ক্লিক করলে IDM দিয়ে ডাউনলোড করা যাবে সিড এর ঝামেলা ছারাই । IDM ইন্টার নেট ডাওলোড ম্যানেজারে সাইলেন্ট আজিবন মেয়াদ ফ্রি ভার্সন এখানে ক্লিক করে ডাউনলোড করে নিন, মনে রাখবেন এটা আপডেট দিবেন না ।

আশা করি আমার এই post টি আপনাদের ভালো লেগেছে এবং হয়তবা কারো ইকটু হলেও কাজে লাগলে আমার বেশ ভালো লাগবে। আপনাদের ভালো লাগলে আরও বেশ কিছু বিষয় নিয়ে লিখবো ইনশাআল্লাহ্‌। তবে একটা কথা মন্তব্য দিয়ে কিন্তু আমাকে জানাতে হবে। ধন্যবাদ।

comments

11 COMMENTS

  1. প্রথমে স্বাগতম এই ব্লগে। অসাধারন একটা পোস্ট ফয়েজ। সবাই প্রথম পোস্টেই ফাটাইয়া দিচ্ছি… আশা করি নিয়মিত লিখে যাইবা দোস্ত। ধন্যবাদ তুমাকে। ভালো থাকো। 🙂

  2. অসাধারন পোস্ট হয়েছে। মুভি প্রেমিক শুধু না যারা অনলাইন থেকে নিয়মিত কিছু না কিছু ডাউনলোড করেন তাদের বেস কাজে দিবে।

    আর শাকিল ভাই আপনাকে আমাদের ব্লগে স্বাগতম। আশা করি আমাদের ব্লগের নিয়মিত লেখক ও পাঠক হিসাবে পাব। ধন্যবাদ এই অসাধারন লেখাটি সবার সাথে শেয়ার করার জন্য।

    • অনেক ধন্যবাদ আপনাকে , ইনশাল্লাহ থাকবো এই ব্লগের সাথে পাঠক হিসেবে এবং মাঝে মাঝে চেষ্টা করবো টুকটাক কিছু শেয়ার করার। ভালো থাকবেন

    • ভাই Hasan Imam আপনার IDM নিরবিচ্ছিন্ন নেট কানেকশন থাকা অবস্থায় রিসম হবার কথা , কোন কারনে আপনার নেট কানেকশন ডিসকানেক্ট বা পিসি অফ করে দিলে পুনরায় নেট চালু করে বা পিসি অন করে মিডিয়াফায়ার ফাইলটির নতুন করে লিংক পেয়ে তার পরেই উপরের স্কিন সট এর মত করে ফাইলটি রিসম করা যাবে । নতুন করে ডাউনলোড লিংক পেতে হলে ব্রাওজারের হিস্টোরি ও কুকি মুছে দিতে হবে । আপনি আমার টিউওনটির মিডিয়াফায়ার এর ডাউনলোডে কিছু সমস্যা ও সমাধানঃ অংশ টা আবার পড়ুন ।

    • এক্সট্রা টোরেন্ট আর ইসু হান্ট টোরেন্টে কাজ করবেনা কারন ওদের প্রোক্সি নেই । আপনি অন্য কনো টোরেন্ট এর লিংক ব্যাবহার করুন । কিক এস টোরেন্ট , পাইরেট বে টোরেন্ট পিক টোড়েন্ট সহ ম্যাক্সিমাম টোরেন্ট ই কাজ করে

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here