ব্লগ এবং ব্লগিং সম্পর্কে Basic ধারনা (পর্ব ২)

আসসালামু আলাইকুম। আশা করি আল্লাহ্‌র রহমতে ভালোই আছেন আপনারা। আমিও বেশ আছি। প্রথমে ক্ষমা চেয়ে নিচ্ছি সময় মতো আপনাদের আসুন শুরু করি ব্লগিং : A to Zএর উপর সিরিজ পোস্ট গুলো নিয়মিত দিতে পারছিনা বলে। মনটা বেশ কিছু দিন ভালো ছিলো না তাই আপনাদের জন্য বার বার লিখতে বসে দু এক কলম ছাড়া তেমন কিছু লিখতে পারিনি। আসলে বলুন তোঁ মন ভালো না থাকলে কি আর লিখা আসে !!! অনেক কষ্টে এই পোস্ট টা শেষ করলাম। এটা আরও কদিন আগেই দিতে চেয়েছিলাম।

গত পোষ্টে আমরা জেনে ছিলাম হোস্টেড ব্লগিং প্লাটফর্ম (অর্থাৎ ফ্রি ব্লগিং প্লাটফর্ম) সম্পর্কে। যাদের গত পোস্ট টি পড়া হয়নি এখানে ক্লিক করে আপনারা পড়ে নিতে পারেন। আজ আমি আলোচনা করবো নন হোস্টেড বা সেলফ হোস্টেড ব্লগিং প্লাটফর্ম নিয়ে। তবে চলুন আর কথা না বাড়িয়ে জানা যাক নন হোস্টেড বা সেলফ হোস্টেড ব্লগিং প্লাটফর্ম কি আর এর বিস্তারিত ব্যাপারখানা…..

নন হোস্টেড ব্লগিং প্লাটফর্মঃ

নন হোস্টেড ব্লগিং প্লাট ফর্ম মূলত সেলফ হোস্টেড ব্লগিং নামেই বেশি পরিচিত। সেলফ হোস্টেড ব্লগিং প্লাটফর্ম হচ্ছে এমন একটি ব্লগিং প্লাটফর্ম যেখানে আপনাকে নিজস্ব ডোমেইন ও নিজস্ব সার্ভারের দ্বারা ব্লগ সফটওয়্যার এর মাধ্যমে ব্লগ পরিচালনা করতে হয়। এক্ষেত্রে ব্লগ সফটওয়্যার গুলো হোস্টেড ব্লগিং প্লাটফর্ম এর মত সার্ভার সুবিধা প্রদান করে না, এমন ব্লগ গুলোর ক্ষেত্রে কোন ৩য় পক্ষকে টাকা পরিশোধ করার মাধ্যমে ওয়েব হোস্ট সুবিধা গ্রহণ করতে হয়। আর এতে সম্পূর্ন নিয়ন্ত্রন ক্ষমতা নিজের কাছেই থাকে।

নিচে জনপ্রিয় কিছু সেলফ হোস্টেড ব্লগিং প্লাটফর্ম দেয়া হোলঃ

  • http://wordpress.org/
  • http://www.joomla.org/
  • http://www.movabletype.org/
  • http://drupal.org/

এখানে আপনি যদি http://wordpress.org কে আপনার ব্লগিং প্লাটফর্ম হিসাবে বেঁছে নেন তবে ওরা কখনোই আপনার ব্লগটাকে হোস্ট করবেনা। এই প্লাটফর্মটি আসলে একটি CMS প্লাটফর্ম। CMS হচ্ছে কন্টেন্ট ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম যা কিনা ওপেন সোর্স যে কেউ নিজের মত করে কাস্টমাইজ এমন কি ডেভেলপ করে করতে পারবে। এখানে আপনাকে নিজস্ব ডোমেইন এবং হোস্টিং এর ব্যবস্থা করতে হবে। আমি জানি আপনারা যারা নতুন তারা ভাবছেন ডোমেইন/হোস্টিং টা আবার কি আবার অনেকেরই হয়তো ধারনা রয়েছে এই ব্যপারে। আসুন তারপরও সংক্ষেপে ডোমেইন এবং হোস্টিং সম্পর্কে জেনে নেই…

ডোমেইনঃ ডোমেইন হচ্ছে আপনার ওয়েব এড্রেস বা URL (Uniform Resource Locators)। আপনার ব্লগ বা ওয়েব সাইটের ঠিকানা। এই ডোমেইন নামেই লোক জন আপনার ব্লগ বা ওয়েবসাইট টাকে চিনবে। যেমন http://earntricks.com এটা একটা ডোমেইন। ডোমেইন এ বিভিন্ন এক্সটেনশন থাকে যেমন .com, .org, .net এবং .info ইত্যাদি।

হোস্টিং : হোস্টিং হচ্ছে ভার্চুয়াল স্পেস বা জায়গা। আপনার ব্লগে বিভিন্ন লেখা বা আর্টিকেল, ইমেইজ, ভিডিও এবং সফটওয়্যার ফাইল জমা রাখার জন্য যে ভার্চুয়াল স্পেস বা জায়গা প্রয়োজন হয় সেটাই হচ্ছে হোস্টিং। সেলফ হোস্টেড ব্লগিং প্লাটফর্ম এ ৩য় পক্ষকে টাকা পরিশোধ করার মাধ্যমে ওয়েব হোস্ট সুবিধা গ্রহণ করতে হয় যেখানে থাকে স্পেস এবং ব্যান্ডউইথ।

ডোমেইন এবং হোস্টিং সম্পর্কে পরবর্তি কোন এক সময়ে আমাদের এই ব্লগেই বিস্তারিত আলোচনা করবো ইনশাআল্লাহ্‌। আশা করি সেই পর্যন্ত আপনাদের সবাইকে সাথেই পাবো।

 

এখন প্রশ্ন হচ্ছে কোন সেলফ হোস্টেড ব্লগিং প্লাটফর্মটি খুব সহজেই ব্লগিং শুরু করা যাবে এবং কাস্টমাইজ সুবিধাও বেশ ! এক্ষেত্রে আমার মতামত হচ্ছে http://wordpress.org। একটা কথা যারা এই লাইনে একে বারেই নতুন তাদের আমি বলি হোস্টেড ব্লগিং প্লাটফর্ম মানে Blogger.com দিয়েই শুরু করতে কারন আপনি এখনো অনেক কাঁচা তবে দু তিন মাস পড়ে আপনি নিজেই বুঝে যাবেন কেন আপনাকে সেলফ হোস্টেড ব্লগিং প্লাটফর্ম মানে http://wordpress.org এ ব্লগিং শুরু করা উচিৎ আর কেনই বা এই প্লাটফর্ম এর জন্য বেস্ট। কেন আমি ওয়ার্ডপ্রেসকে সাপোর্ট করছি সেটা নিয়ে আলোচনা করবো আমার পরবর্তি পোষ্টে। আশা করি আপনাদের সবার কাছে ব্যাপার গুলো বোধগম্য হয়েছে। 🙂

আজ আর নয় আগামী পোষ্টে আলোচনা করবো হোস্টেড ব্লগিং প্লাটফর্ম নাকি সেলফ হোস্টেড ব্লগিং প্লাটফর্ম দিয়ে আপনি শুরু করবেন আপনার ব্লগিং যাত্রা। সেই পর্যন্ত সবাই ভালো থাকুন। আর সাথেই থাকুন আর্নট্রিক্স এর। ধন্যবাদ।

comments

24 COMMENTS

    • ধন্যবাদ জাকির আপনাকে প্রথম মন্তব্য করার জন্য। পোস্ট টা আপনার ভালো লাগছে শুনে আমারও অনেক ভালো লাগছে। আশা করি এই ব্লগে আপনাকে মাঝে মাঝে পাবো। ভালো থাকবেন 🙂

    • অসংখ্য অসংখ্য ধন্যবাদ আরিফ তোমার মন্তব্যের জন্য 🙂 পোষ্ট টা তোমাদের ভালো লাগছে শুনে আমার ও অনেক ভালো লাগছে। আর আরও ভালো লাগছে এই ভেবে যে কষ্ট টা সার্থক, কারন বেশ কদিন ধরে আমি লিখতেই পারছিলাম না, বসলে আর লিখা আসতো না। Thanks God. পরবর্তি পোস্ট ইনশাআল্লাহ্‌ সময় মতো ই পাইবা।

  1. ভাল ও অনেক গুছান লেখা হয়েছে। চালাইয়া যাও
    আমি খুব শিগ্রই সবার জন্য ওয়ার্ডপ্রেসে ব্লগিং করার মন্ত্র নিয়া আসতাছি 😉

    • দেরি তে হলেও খুব গুরুত্বপূর্ণ একটা পোস্ট দেয়ার জন্য অনেক অনেক ধন্যবাদ। দোয়া করি আপনার জানি আর মন খারাপ না হয় আর আমরাও নিয়মিত আর তাড়াতাড়ি পোস্ট পাই। আর মাসুদ ভাইয়ের পোষ্টের জন্যও অপেক্ষায় আছি। ধন্যবাদ ভাইয়া।

  2. ধন্যবাদ। অনেকদিন পর লেখার জন্য। ইনফোলিংক ও ক্লিকসর এর অপেক্ষায় দিন গুনছি। 🙂

    • প্রিয় সুমন ভাই,
      এই লেখাটি পড়ে তারপর এড সেটিং করেছি। কিন্তু মাত্র ২ টা ক্লিক পড়েছে কোন টাকা জমা নেই। নিয়ম কানুন গুলা বিস্তারিত জানতে চাই। এক ছবি সহ সব কিছু বুঋিয়ে দিলে খুব উপকার হয়। অন্য দিকে ক্লিকসর এড নিজে কখনও দেখতে পাচ্ছি না। কিন্তু proxite.me দ্বারা দেখা যায়। সমস্যা হল ভিজিটর তো আর proxite.me দিয়ে ওপেন করবে না। এ ছাড়াও ক্লিকসর এড সেট করার পর থেকে সংশ্লষ্ট সাইট ওপেন করলে ৯৫ ভাগ সময় সাইট হ্যাং হয়ে যায়। পাশাপাশি অন্যান্য সাইটও। তবে সংশ্লষ্ট সাইট ক্লোজ করলে ঠিক হয়ে যায়। আমার একটি এডাল্ট ব্লগ সাইট আছে। ডেইলী পেজ ভিউ ২০০০ এর উপরে। কিন্তু এড ক্লিক হয় না। তবে .01/.02 করে ব্যালানস বাড়ে। কোন ক্লিক ছাড়াই। এ বিষয়ে আপনাদের একান্ত সহযোগিতা কামনা করছি। আমার ক্লিকসর ব্যালন্স .55।

    • আপনাকে আমাদের এই ব্লগে স্বাগতম। শুনে ভালো লাগলো যে পোস্ট টা আপনার ভালো লেগেছে। তবে আগের পর্ব টাকি পরে ছিলেন মেহেদি ভাই ? আশা করি সময় পেলে এই ব্লগে আসবেন। অসংখ্য ধন্যবাদ মন্তব্যর জন্য। ভালো থাকবেন।

    • ধন্যবাদ অন্ত খান আপনাকে নিয়মিত পেয়ে অনেক ভালো লাগছে। আশা করি পরের পোস্ট গুলতেও আপনাকে সাথে পাবো আর হ্যাঁ আমি নিয়মিত ই পোস্ট দিবো ইনশাআল্লাহ্‌।

  3. এখন আমি জানি কে সবচেয়ে ব্রেনি… আমি আপনার আগামী পোষ্টের অপেক্ষায়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here