সময়টা এখন রেসপনসিভ ওয়েব ডিজাইনের!

লেখক : , প্রকাশকাল : 03 February, 2013

রেসপনসিভ ওয়েব ডিজাইন এমনই একটি প্রযুক্তি, যেটি একই ওয়েবসাইট ডিভাইস অনুসারে ডিজাইন পরিবর্তন হবে। যেমন- মোবাইল থেকে ভিজিট করলে এটি মোবাইল সংষ্করণে পরিবর্তন হয়, আবার ট্যাবলেট থেকে ভিজিট করলে এটি স্বয়ংক্রিয়ভাবে ট্যাবলেট সংস্করণ প্রদর্শণ করে। আবার ডেস্কটপ ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের কাছে এটি মূল সংস্করণ প্রদর্শণ করে। শুধু ডিভাইস ভেদে নয়, ব্রাউজার ভেদেও রেসপনসিভ ওয়েব সঠিকভাবে দেখা সম্ভব। আপনি ওয়েবসাইটটি ব্রাউজারে বেশ কয়েকটি রেজ্যুলেশনে দেখতে পারবেন। ফলে জুম বাড়ালে বা কমালে ওয়েবসাইটটি ভালোভাবে দেখা যায়, ভেঙ্গে যায় না।

responsive web

গুগল রিসার্চ থেকে সম্প্রতি একটি তথ্য প্রকাশ করা হয়। এতে বলা  হয়, প্রায় ৬৭ শতাংশ কনজিউমার মোবাইল ফ্রেন্ডলি ওয়েবসাইট পছন্দ করেন। তারা শপিং করা বা প্রোডাক্ট রিসার্চ যে কারণেই হোক মোবাইল ফ্রেন্ডলি বা তার নিজস্ব ডিভাইস ফ্রেন্ডলি ওয়েবসাইটে বারবার ফিরে আসেন।

বিশ্বব্যাপী যেহেতু নন-ডেস্কটপ ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা প্রতিনিয়তই বাড়ছে, পুরাতন ওয়েবসাইটগুলোতে তাই রেসপনসিভ ডিজাইনে মুভ করানোর প্রয়োজনীয়তা বোধ করছেন সংশ্লিষ্ঠরা। এই বছরের মধ্যেই রেসপনসিভ ওয়েব ডিজাইনারদের চাহিদাও কর্পোরেট প্রতিষ্ঠান এবং ফ্রিল্যান্স মার্কেটপ্লেসগুলোতে প্রচুর পরিমাণে বাড়বে। সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়া ব্লগ ম্যাশেবল এ বলা হয়, ২০১৩ সাল হবে রেসপনসিভ ওয়েব ডিজাইনের

রেসপনসিভ ডিজাইনে যা আছে
রেসপনসিভ ওয়েব ডিজাইন মূলত সিএসএসথ্রি, মিডিয়া কোয়ারি ব্যবহারের মাধ্যমে তৈরি করা হয়। এরফলে ভিন্ন ভিন্ন ডিভাইসের স্কিন রেজ্যুলেশন অনুযায়ি গ্রিড ও ইমেজ লোড হয়। এছাড়া ডিভাইসভেদে কনটেন্ট দেখানো বা লুকানোরি সুযোগ থাকে। আপনি সাইটকে জুম করো যেতোই ছোট বা বড় করেন না কোনো এটি ভেঙ্গে যাবে না। যথাযথভাবে দেখাবে।

responsive web design
ডেভসটিম ইনস্টিটিউটে রেসপনসিভ ওয়েব ডিজাইন প্রশিক্ষণ
যারা ওয়েব ডিজাইনে ক্যারিয়ার গড়তে চান তাঁদের জন্যই ডেভসটিম ইনস্টিটিউট আয়োজন করেছে রেসপনসিভ ওয়েব ডিজাইন প্রশিক্ষণ। তিন মাসব্যাপী এ প্রশিক্ষণে ফটোশপ পিএসডি ডিজাইন,এসইচটিএমএল, সিএসএস, রেসপনসিভ লেআউট, জাভাস্ক্রিপ্ট বেসিক এবং পিএসডি টু এইচটিএমএল কনভার্সনসহ পূর্ণ ওয়েব ডিজাইন শেখানো হবে।

কম্পিউটার ল্যাব এবং সুবিধা
আমাদের কম্পিউটার ল্যাবে প্রতিজন শিক্ষার্থীর জন্য রয়েছে আলাদা আলাদা কম্পিউটার, এখান থেকেই একজন শিক্ষার্থী প্র্যাকটিস শুরু করতে পারবেন। আর লেকচারের পাশাপাশি বড় প্রজেক্টরের মাধ্যমে লাইভ কাজ করে দেখানো হয় প্রতিটি ক্লাসে। আর ক্লাশ শেষে প্রতিদিন প্রয়োজনীয় বিভিন্ন ভিডিও এবং পিডিএফ রিসোর্স সরবরাহ করা হয় যেখান থেকে একজন শিক্ষার্থী তার বিষয়গুলোকে আরও ভালোভাবে আয়ত্ব করতে পারেন। ক্লাশ শেষে ওডেস্ক সহ বিভিন্ন ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেসে কিভাবে কাজ করতে হয় সেটিও দেখিয়ে দেয়া হবে।

যারা শেখাবেন
১. আবু হুরাইরা ফয়সাল, প্রফেশনাল ওয়েব ডিজাইনার এবং ফ্রিল্যান্সার
২. ইউনুস হোসেন, প্রফেশনাল ওয়ার্ডপ্রেস ডেভেলপার

ভর্তি এবং প্রশিক্ষণ ফি
আমাদের আপকামিং ব্যাচটির ক্লাশ শুরু হবে ১৫ ফেব্রুয়ারি থেকে। ক্লাশ হবে সপ্তাহে দুদিন। প্রতি শুক্র এবং শনিবার বিকাল সাড়ে ৫ টা ৩০ থেকে রাত ৮ টা। দু’মাসের তাত্বিক প্রশিক্ষণ এবং এক মাসের রিয়েল লাইফ প্রজেক্ট সহ মোট প্রশিক্ষন ফি: ১৫,০০০ টাকা। ৪.৫ শতাংশ ভ্যাট প্রয়োজ্য।

আরোও বিস্তারিত জানতে চাইলে বা ইভেন্ট সংক্রান্ত কোন প্রশ্ন থাকলে ইভেন্ট ওয়ালে পোস্ট করতে পারেন। আলোচনার জন্য যোগ দিতে পারেন আমাদের অফিসিয়াল ফেসবুক পেইজে।

ডেভসটিম সোশ্যাল নেটওয়ার্ক
১. ফেসবুক পেজ: http://facebook.com/DevsTeamInstitute
২. আমাদের টুইটার: http://twitter.com/DevsTeamInst
৩. ফেসবুক গ্রুপ: https://www.facebook.com/groups/DevsTeam
৪. আমাদের লিংকেডিন: http://www.linkedin.com/company/devsteam

আমাদের অফিসের ঠিকানা:
ডেভসটিম ইনস্টিটিউট, ডেভসটিম লিমিটেড
স্যুট# ১২১২, লেভেল#১২, মাল্টিপ্লান সেন্টার
৬৯-৭১ এলিফ্যান্ট রোড, ঢাকা – ১২০৫
ফোনঃ ০২৯৬৬২৬৪৪, ০১৯১১-৪৬৪৭১০, ০১৭১১২৬৭৯১১, ০১৮১২১৫৪৪৫৯

নিবন্ধনের শেষ তারিখ: ১২ ফেব্রুয়ারি ২০১২

তবে আসন সংখ্যা সীমিত। আপনার আসনটি আগেভাগে বুকিং করে রাখুন।
আপডেটেড থাকার জন্য আমাদের ফলো করবেন আশা করি। 🙂

comments

Comments

  1. -পোস্টি অনেক সুন্দর হয়েছে । শেয়ার করার জন্য ধন্যবাদ । আমার ব্লগেও এই ধরনের কিছু পোস্ট আছে ।

  2. হামিদ আহমেদ says:

    ভাই সবিই ঠিক ছিল। কিন্তু আপনারা প্রশিক্ষণ ফি অনেক বেশি নিয়ে ফেলছেন, জানি, বলবেন এই ট্রেনিং নেয়ার পর যেকেউ মাসে ভালো ইনকাম করতে পারবে, কিন্তু কারো ইচ্ছা আছে ট্রেনিং নেয়ার, এতো এই অর্থটুকও যোগান দেয়ার মত অবস্থা তার নাই, তাহলে সে কি করবে?? তাই বলিকি মানব সেবা করেন ঠিক আছে, কিন্তু আপনাদের ফি টা কমান, আপনাদের প্রত্যেকটা প্রশিক্ষনের ফি অনেক বেশি। আর তা নাহলে মানব সেবা করার বদলে এটা বাঁশ দেয়ার মতই হবে/হচ্ছে।

  3. maria says:

    আমারও একই সমস্যা । আমি এখন কি করতে পারি ? জানাবেন কি ………………

মন্তব্য প্রদান করুন

*