ওয়েব ডিজাইনারদের জন্য প্রয়োজনীয় ৮ টি টুলস

লেখক : , প্রকাশকাল : 22 December, 2012

ওয়েব ডিজাইন হলো একটি আর্ট এবং এটি সবাইকে দিয়ে সম্ভব নয়। তবে তার মানে এই নয় যে, এটি কিছু ব্যক্তির জন্য নিষিদ্ধ! মূলত ক্রিয়েটিভিটিই হলো একজন ওয়েব ডিজাইনার সর্বোপরি একজন ডিজাইনারের সাফল্যের প্রধান সিড়ি। এই বিষয়ে কেনো সন্দেহ নেই যে, ওয়েব ডিজাইন হলো দ্রুত বর্ধনশীল একটি মাধ্যম।  ক্রিয়েটিভিটি আর চেষ্টা থাকলে যে কেউ একজন ওয়েব ডিজাইনার হতে পারে এবং ওয়েব কননেন্ট ডেভেলপ করে এই সেক্টরে স্মার্ট ক্যারিয়ার গড়তে পারেন
ওয়েব ডিজাইনারদের সহায়তার জন্য অনেক টুলস থাকলেও ভালোর তালিকা খুবই ছোট। এই টুলসগুলো ওয়েব ডিজাইনারের কাজকে সহজ করে ও মান উন্নত করে। আজ আর্নট্রিক্সের পাঠকদের জন্য এমনই ৮টি টুলসের কথা জানাবো।

ফায়ার এফটিপি
প্রত্যেক ওয়েব ডিজাইনার মজিলা ফায়ারফক্সসহ কয়েকটি ইন্টারনেট ব্রাউজার ব্যবহার করেন তাদের কনটেন্ট দেখতে কেমন হচ্ছে সেটি দেখার জন্য। ‘ফায়ার এফটিপি’ হলো মজিলা ফায়ারফক্সের এমনই একটি অ্যাডঅন বা এক্সটেনশন যা ব্রাউজারের উইন্ডোতেই এফটিপি সার্ভারে অ্যাক্সেসের সুযোগ দেয়। আপনার যদি এই অ্যাডঅনটি থাকে তাহলে আপনাকে আলাদভাবে কোনো এফটিপি ক্লায়েন্ট ব্যবহার করার দরকার নেই। এটি ব্রাউজার থেকে এফটিপি ক্লায়েন্ট সফটওয়্যারে মুভ করার সময় বাঁচায়।

firefox_ftp

ফায়ারবাগ
একজন ওয়েব ডিজাইনার বা ডেভেলপারের জন্য সবচেয়ে উপযোগি ও কাজের অ্যাডঅন বলা হয় ‘ফায়ারবাগ’কে। ফায়ারফক্সের এই অ্যাডঅনটির মাধ্যমে ওয়েব ডিজাইনার তার কনটেন্ট ব্রাউজার উপযোগি করে নিজের মতো পরিবর্তন, পরিবর্ধণ করতে পারেন। এটির মাধ্যমে সিএসএস, এইচটিএমএল, জাভাস্কিপ্ট পরিবর্তন করা ও সরাসরি সেই পরিবর্তন লক্ষ্য করা যায়। এভাবে পরিবর্তন করার পর কোডটি কপি করে আপনি মূল ফাইল আপডেট করলেই সহজেই আপনার পছন্দের ডিজাইনটি তৈরি হয়ে যাবে।
firebug-splash

এইচটিএমএল ভেলিডেটর
এটিও একটি ফায়ারফক্স অ্যাডঅন, যা ওয়েবপেজের এইচটিএমএলকে ব্রাউজারে যথার্থভাবে সমর্থন করতে সহায়তা করে। যখন কোনো ওয়েবপেজ ফায়ারফক্সে লোড হয় তখন এটি এইচটিএমএল ভেলিডেট করে এবং স্ট্যাটাসবারে একটি আউকন দেখায়। যখন আপনি ঐ আইকনের উপর আপনার মাউস রাখবেন তখন এটি এইচটিএমএল ভুলগুলো প্রদর্শন করে। আপনি আরেকটি উইন্ডোতে এই ভুলগুলোর সোর্সকোড দেখতে পাবেন।

html validator

সিএসএস ভেলিডেটর
এটিও মজিলা ফায়ারফক্সের আরেকটি অ্যাডঅন যা সিএসএস ভেলিডেট করে। এটি ডব্লিউথ্রিসি সিএসএস ভেলিডেশনের সঙ্গে সম্পৃক্ত ও সিএসএস ভুলগুলো খুঁজে পেতে সহায়তা করে। মাউসের ডানবাটন ক্লিক মেনুর মাধ্যমে এই ভুলগুলো আরেকটি নতুন ব্রাউজারে দেখা যায়।

css-validator

কালার ডিটেক্টর
এটি একটি সফটওয়্যার যা আপনার মনিটর স্কিনের যেকোনো স্থানের কালার বা রঙ ডিটেক্ট করে এবং ঐ কালারটির একটি হেক্সাডেসিমেল কালার কোড তৈরি করে। আপনার স্কিনে দেখা কোনো কালার আপনার ওয়েবপেজে ব্যবহার করতে চাইলে এই সফটওয়্যারের মাধ্যমে আপনি ঐ কালার কোডটি নিয়ে ব্যবহার করতে পারবেন। এজন্য ঐ কালারটির উপর আপনার মাউসের কার্সরটি নিন, এরপর ফ্রিজের জন্য ঋ৫ চাপুন ও হেক্সাকোড কপির জন্য ঋ৬ চাপুন। তাহলে আপনার পছন্দের কালারটির হেক্সাকোড উইন্ডোজ ক্লিপবোর্ডে যুক্ত হয়ে যাবে এবং আপনি ব্যবহার করতে পারবেন।

colour decector

কালার লাভার
এটি একটি ওয়েব বেসড সার্ভিস। এখানে আপনি বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তের ব্যবহারকারীদের ব্যবহৃত কালার, প্যাটার্ন এবং কালার প্যাটার্ন খুঁজে পাবেন। এখন আপনার ওয়েব পেজের সঙ্গে মানানসই ও প্রয়োজনীয় কালারটি বেছে নিতে পারে। যারা কালার বা রঙ পছন্দ করেন তাদের জন্য এটি একটি অসাধারণ জায়গা।
colour-lovers

মেজারআইটি
এটিও একটি ফায়ারফক্স অ্যাডঅন, যা একটি ওয়েবপেজের পেজ এলিমেন্ট পরিমাপ করে। এটি ওয়েবপেজের উপর রুলার আঁকে এবং পেজ এলিমেন্টটির বিভিন্ন পরিমাপের তথ্য দেয়। এই টুলের মাধ্যমে আপনার যে লেআউটটি পছন্দ হোক সাথে সাথেই তা পরিমাপ করতে পারবেন এবং আপনার ওয়েব ডিজাইনে সেটি ব্যবহার করতে পারবেন।

measureit-addon

কম্পফাইট
এটি একটি ওয়েব নির্ভর সার্চ টুল যা ইমেজ শেয়ারিং সাইট ফ্লিকার থেকে ইমেজ অর্থাৎ ছবি খুঁজে পেতে সহায়তা করে। আপনার ওয়েবসাইটে ব্যবহারের জন্য মানানসহ ছবি দ্রুত খুঁজে পেতে এই সফটওয়্যারটি অসাধারণ কাজে লাগবে।

compfight

আগামীতে ওয়েব ডিজাইনের অন্য কোনো বিষয় নিয়ে কথা হবে। উপরের লেখা সম্পর্কিত আপনাদের কোনো প্রশ্ন থাকলে কমেন্ট করতে পারেন। আশাকরি যত শীঘ্রই সম্ভব আপনাদের উত্তর দেওয়ার চেষ্টা করবো।

comments

Comments

  1. অনেক সুন্দর লেখা আতিক ভাই। আশাকরি আরো ভালো ভালো কনটেন্ট পাবো আপনার কাছ থেকে…

  2. টুলস গুলো সত্যিই কাজের! এছাড়া গুগল ক্রোম ব্যবহার করলে আপনার দেয়া টুলস গুলোর মধ্যে কয়েকটা বাদ পড়ে যাবে 🙂

    সেয়ার করার জন্য ধন্যবাদ!

  3. Jotil. Khobi valo laglo.

মন্তব্য প্রদান করুন

*